দৃক এবং সূর্য সিদ্ধান্ত

ভারতের পশ্চিমবঙ্গে দুই ধরনের পঞ্জিকার প্রচলন আছে। দৃক এবং সূর্য সিদ্ধান্ত ভিত্তিক পঞ্জিকা। এই দুই পঞ্জিকায় কোনও মাসে দিনের সংখ্যা , তিথি শুরু এবং শেষের সময় ইত্যাদির পার্থক্য দেখা যায়। প্রায় প্রতি বছর মানুষের মধ্যে বাংলা তারিখ নিয়ে বিভ্রান্তি তৈরি হয়ে থাকে। কিন্তু কেন এই পার্থক্য? এই বিষয়ে আমরা সংক্ষেপে আলোচনা করব।

সূর্য সিদ্ধান্ত

সূর্য সিদ্ধান্ত পঞ্জিকা প্রস্তুত করবার এক প্রাচীন পদ্ধতি। মনে করা হয় এই পদ্ধতি আনুমানিক ১৫০০ বছর পুরনো। অনেকের ধারনা জ্যোতির্বিদ্যার জগতে এটি প্রথম বই। সূর্য সিদ্ধান্তে উপলব্ধ সূত্রের মাধ্যমে সৌর বর্ষের দৈর্ঘ্য , তিথির শুরু এবং শেষের সময় ইত্যাদি জানা সম্ভব। কিন্তু এই পদ্ধতির জন্য প্রয়োজনীয় ধ্রুব সংখ্যা গুলির সংস্কার না হওয়ার দরুন এই পদ্ধতিতে প্রাপ্ত ফল অনেক ক্ষেত্রেই বাস্তবের পর্যবেক্ষণের সাথে মেলে না। কিন্তু আজও অনেক পঞ্জিকা প্রস্তুত কারক সংস্থা এই পদ্ধতি অবলম্বন করে তাদের বার্ষিক পঞ্জিকা প্রকাশ করেন। বাংলায় জনমানসেও এই পঞ্জিকার ব্যাবহার বেশি হয়ে থাকে।

দৃক সিদ্ধান্ত

অন্য দিকে দৃক সিদ্ধান্ত আধুনিক পর্যবেক্ষণ এর ভিত্তিতে চলে। এক্ষেত্রে তিথি এবং অন্যান্য বিষয় গুলি বাস্তব পর্যবেক্ষণের সাথে মিলে যায় । দৃক সিদ্ধান্ত অবলম্বন করেও পঞ্জিকা প্রকাশিত হয়ে থাকে।

স্বভাবতই সূর্য সিদ্ধান্ত এবং দৃক সিদ্ধান্ত ভিত্তিক পঞ্জিকার ভেতর পার্থক্য আছে। ভারতীয় হিসাবে মাসের শুরু সংক্রান্তির উপর নির্ভর করে। অর্থাৎ এক রাশি থেকে অন্য রাশি তে সূর্যের গমন। কিন্তু গণনার মৌলিক পার্থক্যের জন্য মাস এর হিসাব দুই সিদ্ধান্ত মতে ভিন্ন হতে পারে। সেক্ষেত্রে বাংলা তারিখও কোনও মাসে দুই পঞ্জিকা মতে ভিন্ন হয়ে থাকে। এই পার্থক্য আমাদের অ্যাপ ব্যবহারকারীদের ভেতর ও অনেক বিভ্রান্তি তৈরি করে। এবং শুধুমাত্র এই কারণেই বহু মানুষ আমাদের অ্যাপটিকে খারাপ রেটিং দিয়ে থাকেন প্রতি বছর।

আউটস্কার এর বাংলা এবং অসমীয়া ক্যালেন্ডারে দৃক এবং সূর্য সিদ্ধান্ত দুই পদ্ধতিই উপলব্ধ। সেটিংস অপশন থেকে পঞ্জিকা পরিবর্তন করা সম্ভব এই দুই অ্যাপেই।